মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত আসামি ছিনতাই, পুলিশ নিহত

17

jmbময়মনসিংহের ত্রিশালে মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত তিন জেএমবি সদস্যকে ছিনিয়ে নিয়ে গেছে তাদের সহযোগীরা। এ সময় আতিক নামে এক পুলিশ সদস্য গুলিবিদ্ধ হয়ে মারা গেছেন। আহত হয়েছেন আরও দুইজন। আজ রবিবার সকালে গাজীপুরের কাশিমপুর কারাগার থেকে তাদের ময়মনসিংহ আদালতে নেয়ার পথে এই হামলার ঘটনা ঘটে। ছিনতাই হওয়া তিন আসামি হলেন- সালাউদ্দিন সালেহীন (সজীব), বোমা মিজান ও রাকিব হাসান। পলাতক আসামিদের ধরতে পুলিশ রেড এলার্ট জারি করেছে।

সংঘর্ষে আহত এস আই হাবিবুর রহমান সাংবাদিকদের বলেন, আমাদের প্রিজনভ্যানটি ত্রিশালের সাইনবোর্ড এলাকায় পৌঁছালে ঐ আসামির সহযোগীরা ট্রাক ও মাইক্রোবাস দিয়ে প্রিজনভ্যানের গতিরোধ করে। বিকট গুলির শব্দে ও আঘাতে আমি অজ্ঞান হয়ে পড়ি। তারপর আর কিছু জানি না।

প্রিজনভ্যানের চালক সবুজ জানান, পিছনে একটি মাইক্রো ও সামনে একটি প্রাইভেটকার প্রিজন সেলের গতিরোধ করে দুইটি গুলি করে চাবি ছিনিয়ে নেয়। পরে তালা ভেঙ্গে আসামি ছিনিয়ে নিয়ে দ্রুত পালিয়ে যায়।

প্রত্যক্ষদর্শী স্থানীয় শাহজাহান মেম্বার জানান, হঠাত্করে গুলির শব্ধ শুনতে পাই। তারপর দেখি ১০/১৫ জন লোক কালো মুখোশপড়া প্রাইভেট ও মাইক্রোবাস থেকে নেমে পুলিশের প্রিজনভ্যানে গুলি ও বোমা ফাটিয়ে হামলা করে।

ময়মনসিংহ মেডিক্যাল কলেজ হাসাপাতাল সূত্রে নিশ্চিত হওয়া গেছে, এ ঘটনায় আতিক নামে এক পুলিশ সদস্য গুলিবিদ্ধ হয়ে মারা গেছেন। এতে আহত হয়েছেন এসআই হাবিবুর রহমান ও পুলিশ কনস্টেবল সোহেল রানা। তারা এখানে চিকিত্সাধীন রয়েছেন। আতিকুল ইসলামের বাবার নাম মৃত. সাইদ শেখ। বাড়ি ময়মনসিংহ জেলার কোতোয়ালী থানার পনঘাগড়া গ্রামে।

ময়মনসিংহ পুলিশ কোর্ট ইন্সপ্যাক্টর শহীদ ফোরকান সাংবাদিকদের জানিয়েছেন, ছিনতাইকৃত আসামিরা হচ্ছেন, সালাউদ্দিন সালেহীন ওরফে সজীব, বোমা মিজান ও রাকিব হাসান। এদের মধ্যে জেএমবির শীর্ষ সন্ত্রাসী সালাউদ্দিন সালেহীন ওরফে সজীব ও রাকিব হাসান মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত আসামি। এছাড়া বোমা মিজান ৪০ বছরের সাজাপ্রাপ্ত। জেলার মুক্তাগাছা থানার ২০০৬ সালের একটি বোমা হামলা মামলার এজাহারভুক্ত আসামি হিসাবে গাজীপুরের কাশিমপুর কারাগার থেকে ময়মনসিংহ কোর্টে হাজিরার উদ্দেশে প্রিজনভ্যানে করে তাদের নিয়ে আসা হচ্ছিল।

তিনি আরও জানিয়েছেন, সালাউদ্দিন সালেহীন ও রাকিবুল হাসান রাকিব ফাসিঁর দণ্ডপ্রাপ্ত আসামি। সালাউদ্দিনের বিরুদ্ধে ৪০টি মামলা রয়েছে। তিনটি মামলায় মৃত্যুদণ্ড প্রদান করা হয়েছে। তিনি নারায়ণগঞ্জের বন্দর থানার ৫৮ নং রোড় এলাকার রফিকুল ইসলামের ছেলে। রাকিবুল হাসান রাকিব এর বিরুদ্ধে ৩০টি মামলা রয়েছে। তিনি জামালপুরের মেলান্দহ থানার বংশীবাড়ী গ্রামে আব্দুস ছোবহানের ছেলে। বোমা মিজানের বিরুদ্ধে ১৯টি মামলা রয়েছে। সে যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত আসামি। তিনি জামালপুর সদরের শেখের ভিটা এলাকার সুজা মিয়ার ছেলে।

ছিনতাই হওয়া তিন সদস্যের মধ্যে রাকিব আটক

ছিনতাই হওয়া মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত তিন জেএমবি সদস্যের মধ্যে রাকিব হাসানকে আটক করেছে আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা। প্রাথমিকভাবে এই খবর নিশ্চিত হওয়া গেছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here