মন্ত্রী-প্রতিমন্ত্রী থেকে বাদ পড়লেন যারা

18

ex- ministerনির্বাচনকালীন মন্ত্রিসভা থেকে মহীউদ্দীন খান আলমগীর, দীপু মনি ও সুরঞ্জিত সেনগুপ্তসহ ৩০ জন বাদ পড়েছেন। এদর মধ্যে ১৬ জন মন্ত্রী এবং ১৪ জন প্রতিমন্ত্রী ছিলেন।

মন্ত্রী-প্রতিমন্ত্রী থেকে বাদ পড়লেন যারা:

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী মহীউদ্দীন খান আলমগীর, পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. দীপু মনি, দপ্তরবিহীনমন্ত্রী সুরঞ্জিত সেনগুপ্ত, খাদ্যমন্ত্রী আব্দুর রাজ্জাক, ডাক ও টেলিযোগাযোগমন্ত্রী সাহারা খাতুন, শ্রম ও কর্মসংস্থানমন্ত্রী রাজিউদ্দিন আহমেদ রাজু, মত্স্য ও প্রাণিসম্পদমন্ত্রী আবদুল লতিফ বিশ্বাস, ভূমিমন্ত্রী রেজাউল করিম হীরা, সংস্কৃতিমন্ত্রী আবুল কালাম আজাদ, সমাজকল্যাণমন্ত্রী এনামুল হক মোস্তফা শহীদ, বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটনমন্ত্রী মুহাম্মদ ফারুক খান, প্রাথমিক ও গণশিক্ষামন্ত্রী আফসারুল আমিন, স্বাস্থ্যমন্ত্রী আ ফ ম রুহুল হক এবং তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তিমন্ত্রী মোস্তফা ফারুক মোহাম্মদ।

স্থানীয় সরকার ও সমবায় প্রতিমন্ত্রী জাহাঙ্গীর কবির নানক, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী ইয়াফেস ওসমান, ভূমি প্রতিমন্ত্রী মোস্তাফিজুর রহমান, মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক প্রতিমন্ত্রী এ বি তাজুল ইসলাম, যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী আহাদ আলী সরকার, ধর্ম প্রতিমন্ত্রী মো. শাহজাহান মিয়া, গৃহায়ণ ও গণপূর্ত প্রতিমন্ত্রী আব্দুল মান্নান খান, প্রাথমিক ও গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী মো. মোতাহার হোসেন, বিদ্যুত্, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ প্রতিমন্ত্রী মোহাম্মদ এনামুল হক, স্বাস্থ্য প্রতিমন্ত্রী মজিবুর রহমান ফকির, পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী মাহবুবুর রহমান, শিল্প প্রতিমন্ত্রী ওমর ফারুক চৌধুরী, প্রতিমন্ত্রী মো. আবদুল হাই এবং মহিলা ও শিশুবিষয়ক প্রতিমন্ত্রী মেহের আফরোজ।

এ ছাড়াও প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্টা হিসেবে নিয়োগ পেয়েছেন ব্যারিস্টার শফিক আহমেদ ও দিলীপ বড়ুয়া। ব্যারিস্টার শফিক আহমেদ আইন, বিচার ও সংসদ মন্ত্রণালয়ের ও দিলীপ বড়ুয়া শিল্প মন্ত্রণালয়ের দায়িত্বে ছিলেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here