নারীর অংশগ্রহণ ছাড়া উন্নয়ন সম্ভব নয় :প্রধানমন্ত্রী

14

জনতার নিউজ

নারীর অংশগ্রহণ ছাড়া উন্নয়ন সম্ভব নয় :প্রধানমন্ত্রী

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, তার সরকার দেশের সর্বস্তরে নারীর অংশগ্রহণ নিশ্চিত করেছে। কারণ মূল জনগোষ্ঠীর অর্ধেক নারীকে উন্নয়নের বাইরে রেখে কখনও প্রকৃত উন্নয়ন সম্ভব নয়। কোন দেশই তাদের মূল জনগোষ্ঠীর একটি অংশকে বাদ দিয়ে উন্নয়ন করতে পারে না। তাই সমাজের সবাইকে সঙ্গে করেই আমাদের উন্নয়নের পথে এগিয়ে যেতে হবে।

গ্লেন কাওয়ানের নেতৃত্বে ‘ডেমোক্রেসি ইন্টারন্যাশনালের’ একটি ৬-সদস্যের প্রতিনিধি দল গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে প্রধানমন্ত্রীর জাতীয় সংসদ ভবন কার্যালয়ে তার সঙ্গে সাক্ষাত্কালে প্রধানমন্ত্রী এ কথা বলেন। ডেমোক্রেসি ইন্টারন্যাশনাল একটি যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক সংস্থা। এটি বিশ্বের ৪০টি দেশে তাদের কর্মকাণ্ড পরিচালনা করছে। এই সংগঠনটি সরকার এনজিও এবং রাষ্ট্রের বিভিন্ন অংশকে দেশের গণতন্ত্রায়ন, নির্বাচন অনুষ্ঠান, নির্বাচন পর্যবেক্ষণ এবং বহুদলীয় গণতান্ত্রিক পদ্ধতি গড়ে তুলতে সহযোগিতা ও পরামর্শ দিয়ে থাকে। বৈঠক শেষে প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম সাংবাদিকদের ব্রিফিং করেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, তার সরকারের গৃহীত বিভিন্ন পদক্ষেপের ফলে বাংলাদেশের রাজনীতিতে নারীর অংশগ্রহণ উল্লেখযোগ্য হারে বৃদ্ধি পেয়েছে। বর্তমান সংসদ সদস্যদের মধ্যে সরাসরি ভোটে নির্বাচিত ২১ জন নারী সংসদ সদস্য রয়েছেন। তিনি বলেন, বর্তমান প্রধানমন্ত্রী এবং জাতীয় সংসদ নেতা, বিরোধী দলের নেতা, সংসদ উপনেতা এবং হুইপ নারী। প্রধানমন্ত্রী বলেন, স্থানীয় সরকারের প্রায় ৩০ শতাংশ আসন (ইউনিয়ন পরিষদ, উপজেলা, পৌরসভা এবং সিটি কর্পোরেশন) মহিলাদের জন্য বরাদ্দ রয়েছে। দেশের সর্বত্র পুরুষদের পাশাপাশি নারীরাও এগিয়ে আসছেন উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, শিক্ষা, ক্রীড়া এবং সৃজনশীল ক্ষেত্রে নারীরা তাদের পুরুষ সহকর্মীর সঙ্গেই কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে এগিয়ে চলেছেন। নারীরা বর্তমানে প্রশাসন, বিচার বিভাগ এমনকি সশস্ত্রবাহিনী এবং আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীতেও নিয়োজিত রয়েছেন। সম্প্রতি বাংলাদেশ নৌবাহিনীতে নারী নাবিক নিয়োগ দেয়া হয়েছে এবং বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ-এ (বিজিবি) নারী সদস্য নিয়োগ দেয়া হয়েছে।

ডেমোক্রেসি ইন্টারন্যাশনালের নেতৃবৃন্দ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশে নারীর অগ্রগতি ও ক্ষমতায়নের ভূয়সী প্রশংসা করেন। আওয়ামী লীগ এবং ডেমোক্রেসি ইন্টারন্যাশনালের মধ্যে দীর্ঘ সুসম্পর্কের কথা উল্লেখ করেন প্রতিনিধি দলের সদস্যরা।  সাবেক পররাষ্ট্র মন্ত্রী ডা. দিপু মনি, আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ এবং প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব আবুল কালাম আজাদ এ সময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন।

এতিম ও আলেমদের সঙ্গে ইফতার

এতিম, প্রতিবন্ধী শিশু, যুদ্ধাহত মুক্তিযোদ্ধা ও আলেম-উলামা-মাশায়েকদের সঙ্গে ইফতার করলেন প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভানেত্রী শেখ হাসিনা। গতকাল বৃহস্পতিবার রমজানের তৃতীয় দিনে প্রধানমন্ত্রীর সরকারি বাসভবন গণভবনে এই ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়। ইফতার শুরুর ২৮ মিনিট আগে মাহফিলস্থলে আসেন প্রধানমন্ত্রী। এরপর তিনি গণভবনে স্থাপিত বিশাল পেন্ডেল ঘুরে ঘুরে এতিম, প্রতিবন্ধীসহ আগত অতিথিদের সঙ্গে কুশল বিনিময় করেন এবং তাদের খোঁজ-খবর নেন।

ইফতারের আগে দেশ ও জাতির সমৃদ্ধি, শান্তি, উন্নয়ন ও সাফল্য কামনা করে বিশেষ মোনাজাত করা হয়। মোনাজাতে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান, তার সহধর্মিনী বেগম ফজিলাতুন্নেছা মুজিবসহ ১৫ আগস্টের সকল শহীদ, জাতীয় চার নেতা, শহীদ মুক্তিযোদ্ধা ও গণতান্ত্রিক আন্দোলনে সকল শহীদের রূহের মাগফেরাত কামনা করা হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here