newসাতক্ষীরার তালায় যৌথবাহিনীর সঙ্গে সংঘর্ষে আজাহারুল ইসলাম (২৮) নামে এক ছাত্রদল নেতার মৃত্যু হয়েছে। গতকাল সোমবার ভোরে উপজেলার মাগুরা খেয়াঘাটের শ্মশানঘাট এলাকায় এই সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। নিহত আজাহারুল ইসলাম ঘোনা গ্রামের মৃত সিরাজুল সরদারের ছেলে। তিনি ইসলামকাটি ইউনিয়ন ছাত্রদলের সভাপতি ছিলেন। সংঘর্ষের পর ঘটনাস্থল থেকে একটি পাইপ গান,পাঁচটি তাজা বোমা ও দুই রাউন্ড বন্দুকের গুলি উদ্ধার করা হয়েছে।

তালা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মতিয়ার রহমান জানান, অবরোধ ও হরতালের নামে বিভিন্নস্থানে সহিংসতার অভিযোগে আজাহারুল ইসলামকে গত রবিবার ভোরে উপজেলার চাঁদপুর গ্রামের একটি বাসা থেকে গ্রেফতার করা হয়। তার স্বীকারোক্তি অনুযায়ী রবিবার মাঝরাতে অস্ত্র উদ্ধারে যায় যৌথবাহিনীর সদস্যরা। গতকাল সোমবার ভোর ৫টার দিকে মাগুরা খেয়াঘাটের পাশে শ্মশানঘাট এলাকায় গেলে যৌথবাহিনীর সদস্যদের লক্ষ্য করে সন্ত্রাসীরা ১৫ রাউন্ড গুলি ছোঁড়ে। এ সময় যৌথবাহিনীর সদস্যরাও পাল্টা গুলি ছুঁড়লে ২০ মিনিট ধরে চলা সংঘর্ষে জখম হয় আজাহারুল ইসলাম। সকাল সাড়ে ৬টার দিকে তাকে সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে নিয়ে এলে জরুরি বিভাগের কর্তব্যরত চিকিত্সক ডা. পরিমল কুমার বিশ্বাস তাকে মৃত বলে ঘোষণা করে। সংঘর্ষে আহত হয়েছে এক উপ-পরিদর্শক ও দুই সিপাহী। আহত পুলিশ সদস্যদের তালা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিত্সা দেয়া হচ্ছে। তবে নিহতের স্বজনদের অভিযোগ, আজাহারুলকে গ্রেফতারের পর অস্ত্র উদ্ধারের নামে বন্দুকযুদ্ধের কাল্পনিক গল্প সৃষ্টি করে গুলি করে হত্যা করা হয়েছে।

সাতক্ষীরার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মাহিদুজ্জামান জানান, আজাহারুলের বিরুদ্ধে তালা থানায় বিভিন্ন ঘটনায় চারটি মামলা রয়েছে।

শেয়ার করুন

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here