haznews

রাজধানীর হাজারীবাগে ভাগলপুর লেনে বোমা বানানোর সময় বিস্ফোরণে যুবদল নেতা জসিম (২৫) মারা গেছেন। এই ঘটনায় হাজারিবাগ থানা যুবদলের সাংগঠনিক সম্পাদক রাজু হোসেন (৩০) গুরুতর আহত হয়েছে।

বৃহস্পতিবার বিকাল সাড়ে চারটার দিকে ১৩৬ নম্বর ভাগলপুর সেকশন ফাঁড়ির পাশের একটি বাড়ির দ্বিতীয় তলায় এই বোমা বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে। নিহত জসিম ও আহত রাজু ওয়ার্ড যুবদল নেতা বলে নিশ্চিত করেছে পুলিশ।

হাজারীবাগ থানা পুলিশ বলছে, বোমা বানানো হচ্ছে এমন খবর পেয়ে পুলিশ ঐ বাসায় অভিযান চালায়। পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে বোমা তৈরিকারীরা তাড়াহুড়ো করেন। এ সময় বিস্ফোরণে দুইজন দগ্ধ হন। পরে তাদের আটক করে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। আহতদুজনকে উদ্ধার করে পুলিশ ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে এলে কর্তব্যরত চিকিত্সক জসিমকে মৃত ঘোষণা করেন। অপরজন রাজু বর্তমানে চিকিত্সাধীন।

অপর দিকে এ সময় বোমার স্প্রিন্টারে পুলিশের তিন সদস্য আহত হয়েছেন। তাদের প্রাথমিক চিকিত্সা দেয়া হয়েছে।

হাজারীবাগ থানার ওসি মঈনুল ইসলাম জানান, নিহত জসিম এবং রাজু হাজারীবাগ থানা যুবদলের নেতা। এর মধ্যে রাজু হাজারীবাগ থানা যুবদলের সাংগঠনিক সম্পাদক।

এদিকে ধানমন্ডি জোনের সহকারী পুলিশ কমিশনার রেজাউল করিম ইত্তেফাককে জানান, বাড়িটির মালিক কানা কামাল এবং তার ভাই জামাল। ওই বাসায় তাদের সন্তানেরা বোমা বানিয়ে বিভিন্ন এলাকায় বিক্রি করে। বিকালে পুলিশ গোপন সংবাদের ভিত্তিতে খবর পেয়ে ওই বাসায় অভিযান চালায়। এসময় হঠাত্ করে ওই বাসায় ভেতরে বোমা বিস্ফোরণ ঘটে। এতে অন্তত ৫ জন আহত হন।

তিনি আরও জানান, পুলিশ ওই বাসায়র ভেতর প্রবেশ করতে চাইলে বাসা থেকে পুলিশের উপর বোমা হামলা চালানো হয়। এতে তিন পুলিশ সদস্য আহত হন। পরে পুলিশ ওই বাসার গেটে ভেঙে প্রবেশ করলে গুরুতর আহত অবস্থায় রাজু এবং জসিমকে আটক করে।

শেয়ার করুন

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here