জনতার নিউজ

প্রতিশোধ নিতে মহিলা সংবাদিকের সামনেই প্রস্রাব সালমানের!

সুলতান-এর শুটিংয়ের পর, তার নিজেকে ‘ধর্ষিতা মহিলা’র মত মনে হত। সম্প্রতি সালমান খানের এমনই এক মন্তব্যের জেরে ভারত জুড়ে সমালোচনার ঝড় বইছে। শুধু তাই নয়, অভিনেতার এই মন্তব্যের জেরে এক গণধর্ষিতাও খোলা চিঠি পাঠিয়েছেন তাকে, যা ইতোমধ্যে সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছে। কিন্তু যাকে নিয়ে এত সমালোচনা, সেই সালমান কিন্তু এখনও পর্যন্ত নিজের মন্তব্যের জন্য ক্ষমা চাননি। উল্টো মুম্বাই বিমানবন্দরে হাজির হয়ে সংবাদমাধ্যমকে দেখে এড়িয়ে যাচ্ছেন তিনি।

কালো হরিণ মামলা থেকে শুরু করে অনিচ্ছাকৃত গাড়ি চাপা দেওয়া মামলা বা ধর্ষণ মন্তব্য, সালমান যেন সব সময়ই বিতর্কের কেন্দ্রবিন্দুতে। কিন্তু যিনি একের পর এক বিতর্কিত মন্তব্য করেন, সেই অভিনেতা মানুষ হিসেবে কেমন, তার কথা বলতে গিয়ে ‘দা হিন্দু’ পত্রিকার সম্পাদক একটি ঘটনার উল্লেখ করেছেন। টুইট করে সবাইকে জানিয়েছেন ওই ঘটনা। এই ঘটনা শুনলে আপনি সালমানের যত বড় ভক্তই হোন না কেন, লজ্জায় আপনার মাথা নত হবেই।

হিন্দু পত্রিকার সম্পাদক শচীন কালবাগ জানিয়েছেন, প্রায় ১০ বছর আগে এক মহিলা সাংবাদিক সালমানের ইন্টারভিউ নিতে গিয়েছিলেন। সালমানের বেশ কিছু সিনেমার সমালোচনা করেছিলেন বলে নায়কের তাকে পছন্দ হয়নি। এরপর ওই মহিলা সাংবাদিককে প্রথমে কৌশলে প্রায় এক ঘণ্টা রোদের মধ্যে দাঁড় করিয়ে রাখা হয়। তারপর তাকে বসতে দেওয়া হয় একটি জীর্ন খাটিয়ায়। এরপর সালমান এসে ওই মহিলা সাংবাদিকের সামনেই প্রস্রাব করেন! এরপর অপমানে ওই সাংবাদিক সেদিন সালমানের ইন্টারভিউ না নিয়েই ফিরে গিয়েছিলেন।

শচীন কালবাগের ওই টুইট সামনে আসতেই তা সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়ে যায়। সেই সঙ্গে ফের সালমানকে নিয়ে জল্পনা শুরু হয়েছে বিভিন্ন মহলে। একজন মহিলার সামনে সালমান কী করে প্রস্রাব করেছিলেন সেদিন তা নিয়ে উঠছে প্রশ্ন। সূত্র- ইন্ডিয়া ডটকম ও দ্য কুইন্ট ডটকম।

শেয়ার করুন

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here