জনতার নিউজঃঅনলাইন ডেস্ক

ম্যাচ শুরুর আগে ইতালির স্ট্রাইকার মারিও বালোতেল্লি এক টুইটার বার্তায় লিখেছিলেন, ‘যদি আমরা কোস্টারিকাকে হারাই, সেক্ষেত্রে ইংল্যান্ডের রানী দ্বিতীয় এলিজাবেথের কিস চাই, অবশ্যই তা হতে হবে গালে।’ সেই বালোতেল্লির দুটি মিসই পোড়ালো ইতালিকে, সেই সঙ্গে ইংল্যান্ড কেও। নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে ইতালিকে হারিয়ে মৃত্যুকূপ উৎরাল কোস্টারিকা। হয়তবা গ্রুপ চ্যাম্পিয়নও তারাই হচ্ছে!

শুক্রবার রাতের প্রথম খেলায় রেসিফে মুখোমুখি হয় চার বারের বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন ইতালি ও এবারের বিশ্বকাপের প্রথম অঘটনের জন্মদাতা কোস্টারিকা। ম্যাচে ইতালিকে ১-০ গোলে হারিয়ে দ্বিতীয় পর্বের টিকিট নিশ্চত করল কোস্টারিকা। অন্য দিকে বিশ্বকাপ থেকে ইংল্যান্ডের বিদায় নিশ্চিত হলো। এই খেলায় আজ্জুরিরা জিতলে কিছুটা হলেও আশা বেঁচে থাকত ইংলিশদের। সেই সঙ্গেও ডি গ্রুপের এই ম্যাচের ফলাফল এও জানান দিল যে, ইতালি ও প্রথম বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন উরুগুয়ের মধ্য যে কোনো একটি দলকে গ্রুপ পর্ব থেকে বিদায় নিতে হচ্ছে। এর আগে গ্রুপ পর্ব থেকেই বিদায় নিয়েছে বিশ্বকাপের অন্যতম দাবিদার স্পেন।

খেলার ৪৪ মিনিটের মাথায় বাম দিকে এই টুর্নামেন্টের অন্যতম সেরা একটি ক্রস বাড়ান জুনিয়র দিয়াজ। আর সেটিকে হেডের মাধ্যমে বুফনের জালে জড়ান ১০ নম্বর জার্সিধারি রুজ। এর আগে ৩১ ও ৩৪ মিনিটের মাথায় দুটি দারুণ সুযোগ পান আজ্জুরি স্ট্রাইকার মারিও বালোতেল্লি। প্রথমবার তো গোলরক্ষককে ফাঁকায় পেয়ে যান। কিন্তু তার শটটি চলে যায় গোলপোস্টের অনেক বাইরে দিয়ে।

এবারের আসরে নিজেদের প্রথম ম্যাচে উরুগুয়েকে ৩-১ গোলে হারিয়ে চমকে দিয়েছিল কোস্টারিকা। ইতালিকে হারিয়ে সেই চমকের ধারা অব্যাহত রাখল তারা। শেষ চমকটা অপেক্ষা করছে তিন বিশ্ব চ্যাম্পিয়নকে উড়িয়ে দিয়ে কোস্টারিকার গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হওয়া!

পিছিয়ে থাকা ইতালির কাছ থেকে যে ধরনের খেলা প্রত‌্যাশিত ছিল তা উপহার দিতে ব্যর্থ হন রসি, পিরলো ও বালোতেল্লিরা। উল্টাে কোস্টারিকায় তাদের চাপে রেখেছিল।

শেয়ার করুন

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here