image_81742

log5

আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য শেখ ফজলুল করিম সেলিম বলেছেন, হরতালে নাশকতার মাধ্যমে মানুষ হত্যার দায়ে বিরোধী দলীয় নেত্রী খালেদা জিয়াকে আইনের আওতায় এনে বিচার করা হবে। ভবিষ্যতে কেউ অরাজকতা করলে বাংলার জনগণও তার দাঁত ভাঙ্গা জবাব দেবে। তিনি বলেন, তত্ত্বাবধায়ক নয় নির্বাচিত সরকারের বেশে অনির্বাচিত সরকারের মাধ্যমে যুদ্ধাপরাধীদের রক্ষার ঘৃণ্য খেলায় মেতে উঠেছে বিএনপি। তবে সন্ত্রাস নৈরাজ্য সৃষ্টি করে নির্বাচন প্রতিহত করা যাবে না।

আজ মঙ্গলবার দুপুরে আজিমপুরে ঢাকা মহানগর দক্ষিণ যুবলীগ আয়োজিত হরতাল বিরোধী বিক্ষোভ সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

বিরোধী দলের তত্ত্বাবধায়ক সরকার দাবি নাকচ করে দিয়ে শেখ ফজলুল করিম সেলিম বলেন, তত্ত্বাবধায়ক সরকার উচ্চ আদালত অবৈধ করে দিয়েছে। এখন যদি তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচন হয় তাহলে নির্বাচনের পর কেউ উচ্চ আদালতে আবেদন করলে ওই নির্বাচন অটোমেটিক বাতিল হয়ে যাবে। তাছাড়া অতীতে তারা তিন মাসের জন্য ক্ষমতায় এসে দুই বছর রাজনৈতিকনেতৃবৃন্দ ও সাধারণ জনগণের উপরে অমানসিক নির্যাতন করেছে। এ কারণে খালেদা জিয়ার কাল্পনিক এই ফরমুলাকে এদেশের মানুষ প্রত্যাখ্যান করেছে।

আওয়ামী নেতা কর্মীদের ওপর এবং তাদের বাস ভবনে হামলার সমালোচনা করে শেখ সেলিম বলেন, আওয়ামী লীগ পাল্টা আক্রমণ করলে পালাবার পথ পাবেন না। যুবলীগের নেতাকর্মীদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, সন্ত্রাসী কর্মকান্ডের জবাব সন্ত্রাস করে নয়, তোমরা গণতান্ত্রিক রাজনৈতিকভাবে তাদের মোকাবেলা করবে।

যুবলীগ ঢাকা মহানগর দক্ষিণের সভাপতি ইসমাইল চৌধুরী সম্রাটের সভাপতিত্বে সভায় আরো বক্তব্য রাখেন ঢাকা-৭ আসনের সংসদ সদস্য ডা. মোস্তফা জালাল মহিউদ্দিন, মহানগর আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক হাজী মো. সেলিম, যুবলীগের চেয়ারম্যান ওমর ফারুক চৌধুরী, যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক হারুনুর রশীদ, যুবলীগ নেতা দিলীপ সরকার প্রমুখ।

শেয়ার করুন

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here