device vehicleউল্টো পথে গাড়ি চালিয়েছেন, তো বিপদে পড়েছেন। গাড়ির চাকা ফুটো হয়ে যাবে। যে সময় বাঁচানোর জন্য উল্টো পথে যাবেন, তার চেয়ে অনেক বেশি সময় লাগবে চাকা সারাতে। উল্টো মামলা, জেল-জরিমানার মতো হয়রানি তো থাকছেই!

শুক্রবার বেলা ১১টায় রাজধানী ঢাকার হেয়ার রোডের রাষ্ট্রীয় অতিথি ভবন সুগন্ধার পাশে উল্টো পথে গাড়ি চলাচল রোধক যন্ত্র স্থাপন করা হয়। অনুষ্ঠানটির উদ্বোধন করেন পুলিশ মহাপরিদর্শক হাসান মাহমুদ খন্দকার। অনুষ্ঠানে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ কমিশনার বেনজীর আহমেদ, অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার আবদুল জলিল, মিলি বিশ্বাস ও শেখ মারুফ হাসান, যুগ্ম-পুলিশ কমিশনার (ট্রাফিক) মীর রেজাউল আলম, যুগ্ম-পুলিশ কমিশনার (ডিবি) মনিরুল ইসলাম ও ডিএমপির মিডিয়া বিভাগের উপ-কমিশনার মাসুদুর রহমানসহ পুলিশের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

পুলিশ মহাপরিদর্শক হাসান মাহমুদ খন্দকার বলেন, ট্রাফিক আইন অমান্য করে উল্টো পথে যানবাহন চালালে বড় ধরনের দুর্ঘটনার ঝুঁকি থাকে। ঝুঁকি এড়াতে এবং ট্রাফিক ব্যবস্থাপনায় শৃঙ্খলা আনতেই এমন উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। যানবাহন আরোহী, পথচারীসহ সবার চলাচল নিরাপদ করতেও এমন উদ্যোগ খুবই ফলপ্রসূ হবে। মানুষের মধ্যে সচেতনতা বাড়বে। ট্রাফিক আইনও সঠিকভাবে কার্যকর হবে।

ট্রাফিক বিভাগ জানায়, যন্ত্রটি স্টেইনলেস স্টিল দিয়ে তৈরি। ফলে বৃষ্টি-ধুলা-বালির কারণে মরিচা পড়ে নষ্ট হওয়ার কোনো সম্ভাবনা নেই। দেশীয় প্রযুক্তিতে যন্ত্রটি তৈরি। যন্ত্রের ধারালো কাঁটা ৪৫ মিলিমিটার পরপর রাস্তার ওপর তিন ইঞ্চি উঁচু হয়ে দাঁড়িয়ে থাকবে। প্রতিটি কাঁটা বিশেষ স্প্রিংয়ের ওপর বসানো। সোজা দিক থেকে যাওয়া গাড়ি গুলোর চাকা এর ওপর দিয়ে গেলে কাঁটাগুলো চাকার চাপে নির্দিষ্ট খাঁজের ভিতরে ঢুকে যাবে। গাড়ির চাকার ন্যূনতম কোনো ক্ষতি হবে না। আর উল্টো পথে এলেই কাঁটাগুলো দাঁড়িয়ে থাকবে। ফলে চাকা ফুটো হয়ে যাবে।

শেয়ার করুন

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here