5299c0694b7e1-Aishwaryaশাশুড়ি জয়া বচ্চনের সঙ্গে মন-কষাকষির কারণে মেয়ে আরাধ্য আর স্বামী অভিষেককে নিয়ে আলাদা সংসার পাতার পরিকল্পনা করছেন ঐশ্বরিয়া রাই বচ্চন—সম্প্রতি এমন খবরে হইচই পড়ে গেছে বলিউডে। তবে বিষয়টিকে স্রেফ গুজব বলেই দাবি করেছেন অভিষেক বচ্চন।
মুম্বাইয়ের জুহুতে পাঁচ-পাঁচটি বাংলোবাড়ি আছে বচ্চনদের। ‘জলসা’ নামের বাংলোবাড়িতে থাকেন বচ্চন পরিবারের সদস্যরা। ২০০৭ সালে বিয়ের পর থেকে অমিতাভ বচ্চন ও জয়া বচ্চনের সঙ্গে যৌথ পরিবারেই বসবাস করে আসছেন সাবেক বিশ্বসুন্দরী ও বলিউডের অভিনেত্রী ঐশ্বরিয়া রাই বচ্চন। সম্প্রতি টুইটারে অভিষেককে তাঁর এক ভক্ত জিজ্ঞেস করেছিলেন, সত্যিই তিনি ও ঐশ্বরিয়া ‘জলসা’ ছেড়ে নতুন বাড়িতে ওঠার পরিকল্পনা করছেন কি না। জবাবে বাড়ি ছাড়ার খবরকে ভিত্তিহীন গুজব বলে উড়িয়ে দিয়েছেন অভিষেক। তিনি বলেন, এসব বাজে খবরের কোনো মানে হয় না। সম্প্রতি এক খবরে এমনটিই জানিয়েছে ওয়ান ইন্ডিয়া।
এদিকে ঐশ্বরিয়ার কাছের একটি সূত্রও বাড়ি ছাড়ার খবর সত্য নয় বলে দাবি করেছেন। এ প্রসঙ্গে ওই সূত্রের ভাষ্য, বর্তমান যুগের বেশির ভাগ মেয়েই বিয়ের পর শ্বশুরবাড়িতে থাকেন না। কিন্তু এ ক্ষেত্রে ব্যতিক্রম ঐশ্বরিয়া। বিয়ের পর থেকেই তিনি শ্বশুর-শাশুড়ির সঙ্গে এক বাড়িতেই থাকছেন। একসঙ্গে থাকতে গেলে পরিবারের সদস্যদের মধ্যে কিছুটা খিটিমিটি লাগতেই পারে। কিন্তু পারিবারিক বিষয় জনসমক্ষে আনার পক্ষপাতী নন বচ্চনরা।
উল্লেখ্য, সম্প্রতি বলিউডকেন্দ্রিক কয়েকটি সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত খবরে দাবি করা হয়, ঐশ্বরিয়ার পারিবারিক ও ব্যক্তিগত নানা বিষয়ে জয়ার নিয়মিত হস্তক্ষেপের বিষয়টি ঠিক হজম করতে পারছেন না অ্যাশ। এমনকি তাঁর পেশাগত নানা বিষয়েও নাক গলান জয়া। এসব কারণে বউ-শাশুড়ির মধ্যে খিটিমিটি বেধেছে।
এদিকে অবকাশযাপন শেষে কিছুদিন আগে দুবাই থেকে ভারতে ফিরেছেন অভিষেক, ঐশ্বরিয়া ও আরাধ্য। দুবাইয়ে ছুটি কাটানোর সময় তাঁদের সঙ্গে ঐশ্বরিয়ার মা-বাবা ও ভাই থাকলেও ছিলেন না অমিতাভ, জয়া।

শেয়ার করুন

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here