newsওমানের মাসকাট থেকে ১৪৮ যাত্রী নিয়ে ঢাকাগামী ইউনাইটেড এয়ারওয়েজের একটি বিমান অল্পের জন্য রক্ষা পেয়েছে। বিমানটি কলকাতার মধ্য আকাশে আরেকটি বিমানের সঙ্গে অল্পের জন্য সংঘর্ষ এড়িয়েছে। সোমবার এয়ারওয়েজের ঐ বিমানটির ক্যাপ্টেন আরিফুল ইসলাম এনডিটিভিকে এই তথ্য জানান।

 

আরিফুল ইসলাম বলেন, তার বিমানের দিকে অন্য বিমানটি প্রায় দৃষ্টিসীমার দূরত্বে চলে এসেছিল।

 

তিনি বলেন, তিনি বিমানটি নিয়ে ঢাকা থেকে ২৭০ মাইল দূরে কলকাতার আকাশে ৩৩ হাজার ফুট উচ্চতায় অবস্থান করছিলেন। এ সময় কলকাতা ট্রাফিক এয়ার কন্ট্রোল তাকে ২৯ হাজার ফুট নিচে নেমে যেতে বলে। নিচে নেমে যেতে থাকলে টিসিএএস (ট্রাফিক কলিশন অ্যাভয়ডেন্স সিস্টেম) তাকে সতর্ক করে যে, ৩২ হাজার ফুট উচ্চতায় আরেকটি বিমান তার দিকে এগিয়ে আসছে। তার বিমানটিতে ১৪৮ জন যাত্রী ছিলেন।

 

ক্যাপ্টেন আরিফুল বলেন, ঘটনার সময় আকাশ পরিষ্কার ছিল। কোনো মেঘ ছিল না। তার দিকে এগিয়ে আসা বিমানটিকে স্পষ্ট দেখতে পান তিনি। বিমানটি সৌদি এয়ারলাইন্সের কার্গো বিমান হতে পারে বলে তিনি ধারণা করছেন।

 

তিনি দ্রুত কলকাতা এয়ার ট্রাফিক কন্ট্রোলকে অবহিত করেন এবং আরো ৩৩ হাজার ফুট নিচে নেমে আসেন।

 

এনডিটিভিকে তিনি বলেন, নিশ্চয়ই কোনো একটা ভুল হয়েছিল। সব কথোপকথন রেকর্ড করা আছে। চাইলে তা পরীা করা যাবে।

 

আকাশপথে চলাচলের েেত্র সাধারণত দুটি বিমানের মধ্যে এক হাজার ফুট উচ্চতার ব্যবধান থাকে।

 

এ বিষয়ে কোনো মন্তব্য করতে অস্বীকৃতি জানিয়েছে কলকাতা ট্রাফিক এয়ার কন্ট্রোল। ঘটনা তদন্তে দেশটির জাতীয় বিমান কর্তৃপ নির্দেশ দিয়েছে বলে এনডিটিভির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে।

শেয়ার করুন

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here